তারিক হাসান: বাংলাদেশের নির্বাচনে বিরোধী জোটকে প্রতিহত করতে তৈরি বঙ্গবন্ধু ব্রিগেড। এঁদের মধ্যে ৮ জন সরাসরি লড়বেন ভোটের ময়দানে। বাকিরা ‘‌ওয়ার রুম’‌ সামলাবেন। প্রবীণের অভিজ্ঞতা আর নবীনের তারুণ্যে ভর করে এগিয়ে নিতে চান নৌকা (‌আওয়ামি লিগের নির্বাচনী প্রতীক)‌। হেলায় উড়িয়ে দিতে চান জামাত–বিএনপি–‌র বিরোধী জোটকে।
একাদশের দলনেত্রী বঙ্গবন্ধুর জ্যেষ্ঠ কন্যা, বাংলাদেশের তিনবারের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রতিবারের মতো একাদশ সংসদ নির্বাচনেও তিনি লড়ছেন বাপের বাড়ির কেন্দ্র গোপালগঞ্জ–‌৩ আসন থেকে। দ্বিতীয় একটি আসন থেকেও তিনি ভোট ময়দানে। সেটি শ্বশুরবাড়ির এলাকা রঙপুর-৬ কেন্দ্র। বাংলাদেশের প্রথম কোনও প্রধানমন্ত্রী হিসেবে পরপর দুবার ক্ষমতায়। তৃতীয় বারের মতো ক্ষমতায় আসবেন এমনটাই দাবি আওয়ামি লিগের। দলকে এগিয়ে নিয়ে যেতে গত কয়েকবারের সাংসদ, বঙ্গবন্ধুর ভাগনে শেখ ফজলুল করিম সেলিম এবারও গোপালগঞ্জ–‌২ আসনে দলের মনোনয়ন পেয়েছেন। বঙ্গবন্ধুর আরেক ভাগনে আবুল হাসনাত আবদুল্লাহ বরিশাল–‌১ আসনের সাংসদ। এবারও তিনি ওই আসনে আওয়ামি লিগের প্রার্থী। 
মনোনয়ন পেয়েছেন বঙ্গবন্ধুর ছোট ভাই শেখ আবু নাসেরের দুই ছেলে শেখ হেলালউদ্দিন এবং শেখ সালাহউদ্দিন জুয়েল। শেখ হেলালউদ্দিন বাগেরহাট–‌১ আসনের সাংসদ। এবারও তিনি ওই আসনে প্রার্থী। শেখ সালাহউদ্দিন জুয়েল খুলনা–‌২ আসনে প্রার্থী হয়েছেন।
শেখ হেলালউদ্দিনের ছেলে শেখ সারহাম নাসের তন্ময় এবার বাগেরহাট–‌২ আসনে নৌকার নতুন কান্ডারি। তিনি ওই আসনের সাংসদ মির শওকত আলি বাদশার পরিবর্তে প্রার্থী হতে চলেছেন।
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ভাগনে শেখ ফজলুল হক মণির বড় ছেলে ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নুর তাপস ঢাকা–‌১০ আসনের সংসদ সদস্য। তিনি এবারও মনোনয়ন পেয়েছেন। আরেক ভাগনে ইলিয়াস আহমেদ চৌধুরির বড় ছেলে নুর-ই-আলম চৌধুরি (লিটন চৌধুরি) মাদারিপুর–‌১ আসনের সাংসদ। তিনি এবারও দলের প্রার্থী।‌‌‌ সব মিলিয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের পরিবারের আট সদস্য এবার আওয়ামি লিগের মনোনয়ন পেয়েছেন। বাংলাদেশের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তারাই সবচেয়ে হেভিওয়েট প্রার্থী হিসেবে বিবেচিত হচ্ছেন।
এছাড়াও বঙ্গবন্ধুর বোনের নাতি মুজিবুর রহমান চৌধুরি ওরফে নিক্সন চৌধুরি নির্দল প্রার্থী হিসেবে লড়ছেন ফরিদপুর–৪ আসন থেকে। তিনি ওই কেন্দ্রেরই সাংসদ।
রয়েছেন হাসিনার ছেলে সজিব ওয়াজেদ জয় এবং বঙ্গবন্ধুর ছোট মেয়ে শেখ রেহানার ছেলে রেদোয়ান মুজিব সিদ্দিকি ববি। জয় হাসিনার তথ্যপ্রযুক্তি উপদেষ্টা। আওয়ামি লিগের একেবারে নিচের তলা থেকে রাজনীতি শিখছেন। সোশ্যাল মিডিয়ায় আওয়ামি লিগের হয়ে প্রচার চালিয়ে যাচ্ছেন ‘‌ওয়ার রুম’‌ লিডার হিসেবে। রেদোয়ান মুজিব সিদ্দিকি ববি আওয়ামি লিগের গবেষণা প্রতিষ্ঠান সিআরআইয়ের দায়িত্বে।

জনপ্রিয়

Back To Top