ট্যাক্সি চালক থেকে বলিউডের তাবড় অভিনেতা, রাজেশ শর্মার জীবন সিনেমার থেকে কম নয়

গল্প পড়তে পড়তে কত চরিত্রই তো সাধারণ মানুষকে মুগ্ধ করে। মুগ্ধতায় ডুবলেও জীবন সংগ্রাম এবং স্বপ্ন পূরণের লক্ষ্যে ত্যাগ কখনও কখনও চোখেও জল এনে দেয়। অভিনেতা রাজেশ শর্মার জীবন গল্পের মতো হলেও, আসলে প্রতিটা মানুষকেই তা উদ্বুদ্ধ করে। তাঁর জীবনসংগ্রামের কাহিনি আরও কঠোর পরিশ্রমী তরুণ, তরুণীকে লক্ষ্যে পৌঁছতে আশা জোগাবেই।

পঞ্জাবের লুধিয়ানায় জন্ম রাজেশ শর্মার। এরপর নয়াদিল্লির ন্যাশনাল স্কুল অব ড্রামা থেকে স্নাতক হন। সেখান থেকে চলে আসেন কলকাতায়। নাটকের দলের সঙ্গে যুক্ত হয়ে অভিনয় শুরু। কয়েকটি শো'য়ের পরেই সকলের চোখে পড়ে যান রাজেশ।

পঞ্জাবের লুধিয়ানায় জন্ম রাজেশ শর্মার। এরপর নয়াদিল্লির ন্যাশনাল স্কুল অব ড্রামা থেকে স্নাতক হন। সেখান থেকে চলে আসেন কলকাতায়। নাটকের দলের সঙ্গে যুক্ত হয়ে অভিনয় শুরু। কয়েকটি শো'য়ের পরেই সকলের চোখে পড়ে যান রাজেশ।

চেষ্টা করছিলেন বলিউডে। কিন্তু সুযোগ পাচ্ছিলেন না কোনও মতেই। তখন মুম্বইয়ে পেট চালাতে ট্যাক্সি চালানো শুরু করেন তিনি। ট্যাক্সি চালিয়ে জীবনযাপন করেছেন দীর্ঘদিন। এরপর হঠাৎ সুযোগ পান এক বলিউডের সিনেমায়।

চেষ্টা করছিলেন বলিউডে। কিন্তু সুযোগ পাচ্ছিলেন না কোনও মতেই। তখন মুম্বইয়ে পেট চালাতে ট্যাক্সি চালানো শুরু করেন তিনি। ট্যাক্সি চালিয়ে জীবনযাপন করেছেন দীর্ঘদিন। এরপর হঠাৎ সুযোগ পান এক বলিউডের সিনেমায়।

জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত সিনেমা 'মাচিস'-এ সুযোগ পাওয়ার পরেও দীর্ঘ ৯ বছর কোনও সিনেমায় সুযোগ পাননি তিনি। আবারও চলে আসেন কলকাতায়। 'পারমিতার একদিন' সিনেমায় রাজেশকে সুযোগ দেন অপর্ণা সেন।

জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত সিনেমা 'মাচিস'-এ সুযোগ পাওয়ার পরেও দীর্ঘ ৯ বছর কোনও সিনেমায় সুযোগ পাননি তিনি। আবারও চলে আসেন কলকাতায়। 'পারমিতার একদিন' সিনেমায় রাজেশকে সুযোগ দেন অপর্ণা সেন।

এরপর আর পিছন ফিরে তাকাতে হয়নি রাজেশকে। একের পর এক বাংলা সিনেমায় দাপিয়ে অভিনয় করছেন তিনি। ২০০৫ সালে 'পরিণীতা'তে অভিনয় করলেও, তারপরও সুযোগের অপেক্ষায় থাকতে হয়েছে বহুদিন। ২০১১ সালের 'নো ওয়ান কিলড জেসিকা'র পরেই তাঁর নাম ছড়িয়ে পড়ে সর্বত্র।

এরপর আর পিছন ফিরে তাকাতে হয়নি রাজেশকে। একের পর এক বাংলা সিনেমায় দাপিয়ে অভিনয় করছেন তিনি। ২০০৫ সালে 'পরিণীতা'তে অভিনয় করলেও, তারপরও সুযোগের অপেক্ষায় থাকতে হয়েছে বহুদিন। ২০১১ সালের 'নো ওয়ান কিলড জেসিকা'র পরেই তাঁর নাম ছড়িয়ে পড়ে সর্বত্র।

কলকাতায় কাজের সূত্রে থাকার সময় অভিনেত্রী সুদীপ্তা চক্রবর্তীর সঙ্গে আলাপ হয় তাঁর। বিয়েও করেন তাঁরা। কিন্তু ৪ বছর পর বিবাহ বিচ্ছেদ হয় তাঁদের। ২০১১ সালে ফের বিয়ে করেন রাজেশ। সঙ্গীতা এখন তাঁর জীবনসঙ্গিনী।

কলকাতায় কাজের সূত্রে থাকার সময় অভিনেত্রী সুদীপ্তা চক্রবর্তীর সঙ্গে আলাপ হয় তাঁর। বিয়েও করেন তাঁরা। কিন্তু ৪ বছর পর বিবাহ বিচ্ছেদ হয় তাঁদের। ২০১১ সালে ফের বিয়ে করেন রাজেশ। সঙ্গীতা এখন তাঁর জীবনসঙ্গিনী।

ভিলেনের চরিত্র, কিংবা পুলিশ অফিসার বিভিন্ন পেশাতেই তাঁর অভিনয় আলাদা করেই মনে দাগ কাটে দর্শকদের। কেরিয়ারের শুরুতে কাজ পেতে বিভিন্ন সমস্যার মুখোমুখি হতে হলেও, এখন তাঁর অভিনয়ের কারণে নাম ধরেই চেনেন সকলে।

ভিলেনের চরিত্র, কিংবা পুলিশ অফিসার বিভিন্ন পেশাতেই তাঁর অভিনয় আলাদা করেই মনে দাগ কাটে দর্শকদের। কেরিয়ারের শুরুতে কাজ পেতে বিভিন্ন সমস্যার মুখোমুখি হতে হলেও, এখন তাঁর অভিনয়ের কারণে নাম ধরেই চেনেন সকলে।