Corona: বাতাসের মাধ্যমে ছড়িয়ে সংক্রমণ ঘটাতে সক্ষম করোনা, চাঞ্চল্যকর তথ্য ফাঁস বিজ্ঞানীদের

আজকাল ওয়েবডেস্ক: করোনা ভাইরাস কি বায়ুবাহিত? বাতাসের মাধ্যমে ছড়িয়ে সংক্রমণ ঘটাতে কি সক্ষম ভাইরাস? অতিমারির শুরু থেকেই এই প্রশ্ন ছিল সকলের মনে।

যার সঠিক উত্তর খোঁজার জন্য দিনরাত এক করে গবেষণা চালিয়ে গেছেন বিজ্ঞানীরা। অবশেষে ভারতীয় বিজ্ঞানীরা দীর্ঘ গবেষণার পর নিশ্চিতভাবে জানালেন, করোনা ভাইরাস বাতাসে সহজেই ছড়িয়ে পড়তে পারে এবং একজন থেকে অন্যজনের মধ্যে সংক্রমণ ঘটাতেও সক্ষম। 

করোনা রোগী রয়েছেন এমন জায়গার বাতাসের নমুনা সংগ্রহ করে তা পরীক্ষা করে বিজ্ঞানীরা দেখেছেন, সেই সকল এলাকার বাতাসে করোনা ভাইরাসের অস্তিত্ব মিলেছে। বিশেষত হাসপাতাল, কোয়ারেন্টাইন সেন্টারের আশেপাশে, হাসপাতালের আইসিইউ, জেনেরেল ওয়ার্ডেও এই ভাইরাসের অস্তিত্ব মিলেছে। সিএসআইআর সিসিএমবি হায়দ্রাবাদ এবং সিএসআইআর আইএমটেক চণ্ডীগড়ের বিজ্ঞানীরা মিলে এই গবেষণাটি করেছেন। অ্যারোসল সায়েন্স জার্নালে গবেষণাটি প্রকাশিতও হয়েছে। 

গবেষণায় জানানো হয়েছে, বাতাসে ছড়ানো অ্যাক্টিভ করোনা ভাইরাস মানবদেহে সংক্রমণ ঘটাতে পারে। যদিও এই প্রভাব এড়াতে মাস্ক পরা অত্যন্ত জরুরি। গবেষণার অন্যতম গবেষক ড. শিবরঞ্জনীর কথায়, কোনও বন্ধ জায়গায় বাতাস চলাচল না করতে পারলে, সেখানে করোনা ভাইরাস বেশ কিছু সময়ের জন্য বাতাসে অ্যাক্টিভ থাকতে পারে। গবেষণায় দেখা গেছে, দুইয়ের বেশি করোনা রোগী রয়েছেন এমন একটি ঘরের বাতাসে ভাইরাস পাওয়ার ইতিবাচক হার ছিল ৭৫ শতাংশ। অন্যদিকে যে ঘরে একজন করোনা রোগী ছিলেন, সেখানে সেই হার ১৫.৮ শতাংশ ছিল। 

শুধুমাত্র হাসপাতাল চত্বর নয়, বিজ্ঞানী ড. রাকেশ মিশ্র বলেন, ক্লাসরুম এবং মিটিং হলের মতো স্থানগুলিতে করোনা ভাইরাস বাতাসের মাধ্যমে অনায়াসেই ছড়িয়ে পড়তে পারে। তাই জনসমাগম হলে মাস্ক পরা অত্যন্ত জরুরি বলেই জানাচ্ছেন তাঁরা। 

আকর্ষণীয় খবর