'তুমিই চাবি, তোমাকে দিয়েই দরজা খুলবে', ইঙ্গিতপূর্ণ পোস্টের মাধ্যমে কী বার্তা দিলেন যশ!

আজকাল ওয়েবডেস্ক: নুসরত, নিখিল বিতর্কে সমান ঝড় বয়ে যাচ্ছে অভিনেতা যশ দাশগুপ্তর জীবনেও। ইন্ডাস্ট্রি পা রাখার পরে বিতর্কে না জড়ালেও, নুসরত-নিখিলের জীবনে 'ব্যাড বয়' হিসেবে তাঁর দিকেই আঙুল তুলেছেন সকলে। অন্যদিকে কয়েকদিন আগেই রটে যায় নুসরত অন্তঃসত্ত্বা। নিখিলও সাফ জানান, ২০২০ সালের একটি সিনেমার শুটিং চলাকালীন নুসরত বদলে যায় এবং ঘর ছেড়ে কয়েকদিনের মধ্যে চলে যান। এই সমীকরণ থেকেই সাধারণ মানুষের ধারণা, নুসরতের সন্তানের বাবা যশই। যদিও এই বিতর্ক নিয়ে এখনও পর্যন্ত মুখ খোলেননি তিনি। কিন্তু সমস্ত বিতর্ক উপেক্ষা করেই জীবনে আলোর সন্ধান করছেন তিনি। ঘরের মধ্যে বন্দি থাকলেও, ব্যক্তি মানুষই যে ঘর থেকে বেরনোর চাবি, সেই আভাস ফুটে উঠল যশের নয়া ফেসবুক পোস্টে। রুমির একটি পংক্তি তুলে জীবনের ইতিবাচক দিকে মেলে ধরলেন অভিনেতা। লম্বা একটি চাবি এবং একজন মানুষের ছবিতে লেখা রয়েছে, 'জীবনে যা কিছু চরম আঘাত দেয়, তাই যেন শ্রেষ্ঠ আশীর্বাদ। অন্ধকারই আসলে প্রদীপ। বাঁধাই নতুন কিছু খোঁজার প্রকৃত উৎস। রাজত্বের দরজার মূল চাবি ব্যর্থতাই। যখন তুমি উদ্বিগ্ন এবং চিন্তিত থাক, তখন ধৈর্য্য ধর। ধৈর্য্যের হাত ধরেই আনন্দ আসবে। তুমি ভাবছ দরজা বন্ধ হয়ে গেছে। তাই তুমিও বন্দি। কিন্তু তুমিই চাবি, তোমাকে দিয়েই দরজা খুলবে।' পিতৃদিবসে বেবি বাষ্পের ছবি শেয়ার করেছেন নুসরত। প্রিয় বন্ধু হয়েও মিমি, যশ কারও মন্তব্য ছিল না সেই ছবিতে। কিন্তু যে ঝড় তাঁদের সকলের মনের মধ্যে বয়ে যাচ্ছে, সেটা তাঁদের সোশ্যাল মিডিয়ার পোস্ট থেকেই ইঙ্গিত পাচ্ছেন নেটিজেনরা। যদিও যশ, নুসরতের বহু অনুরাগী নেট মাধ্যমেই তাঁদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। সন্তান ও মায়ের সুস্বাস্থ্যের কামনাও করেছেন। কিন্তু নুসরতের সন্তানের প্রসঙ্গে তিনি এখনও কোনও মন্তব্য না করায়, কৌতূহল বাড়ছে নেটিজেনদের।