আজকাল ওয়েবডেস্ক: বাঁধ ভাঙা উচ্ছ্বাস মা, মেয়ের মুখে। হবে নাই বা কেন। শত বাধা উপেক্ষা করেই নিজের স্বপ্নপূরণে অটল থেকেছেন তিনি। সম্প্রতি ইউনিভার্সিটি অফ ক্যালিফোর্নিয়া থেকে স্নাতক হলেন ঋতাভরী চক্রবর্তী। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাগ করে নিলেন সুখবর। ভার্চুয়ালি বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাবর্তনেও হাজির হয়েছেন তিনি। শুধু তাই নয়, নিজের বিষয়ে অর্থাৎ 'অ্যাক্টিং ফর ক্যামেরা প্রোগ্রাম'-এ সেরার শিরোপা জিতে নিয়েছেন তিনি। ২০১৮ সালে এই বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হন ঋতাভরী। কিন্তু গতবছর থেকে একের পর এক বাধা, মানসিক চাপ, শরীরে অস্ত্রোপচার, করোনা, সব মিলিয়ে বিধ্বস্ত হলেও, অনলাইনে পড়াশোনা চালিয়ে গেছেন তিনি। গত এক বছর ধরে বিশ্ববিদ্যালয়ের সমস্ত ক্লাস অনলাইনেই হয়েছে। তাই হাসপাতালে শুয়ে থেকেও সকালে উঠেই ক্লাস করতেন তিনি। নিজের অভিনয়ের জগতের মতোই পড়াশোনায় অবহেলা করেননি তিনি। ঋতাভরীর মতে, তিনি স্নাতক হবেন আশা করেছিলেন, কিন্তু সেরার শিরোপা পাবেন সেটা তাঁর কল্পনাতীত। ঋতাভরীর মতোই তাঁর মা শতরূপা স্যান্যালও মেয়ের সাফল্যে উচ্ছ্বসিত। নিজেও সোশ্যাল মিডিয়ায় তাই আনন্দ ভাগ করে নিয়েছেন। করোনা পরিস্থিতিতে অসহায় মানুষের জন্য একাধিকবার এগিয়ে এসেছেন অভিনেত্রী। কখনও পৌঁছে দিয়েছেন ত্রাণ। কখনও মানসিক স্বাস্থ্যের কথা ভেবে মনোরোগ বিশেষজ্ঞদের নিয়ে হেল্পলাইন চালু করেছেন তিনি। ফলে তাঁর সাফল্যে অনুগামীরাও উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন। 

জনপ্রিয়

Back To Top