আজকাল ওয়েবডেস্ক: বলিউডে তাঁকে ডাকা হয় ‘গ্রিক দেবতা’নামে৷ আর সেই দেবতাই এবার এলেন একদম সাধারণ মানুষের রূপে৷ একজন অঙ্কের শিক্ষক হয়ে৷ কথা হচ্ছে বলিউডের অন্যতম জনপ্রিয় অভিনেতার৷ তিনি আর কেউ নন ঋত্বিক রোশন৷ সুঠাম শরীর, পেশিবহুল হাত, সোনালী চুল প্রভৃতি কারণেই তাঁকে বলিউডের 'গ্রিক গড' অ্যাখ্যা দেওয়া হয়। কিন্তু সেই ‘লুকস’ছেড়ে এক্কেবারে সাধারণ একজন অঙ্কের শিক্ষক৷ বিকাশ বহেল পরিচালিত অঙ্কের শিক্ষক আনন্দ কুমারের বায়োপিক‘সুপার ৩০’ঋত্বিককে। আর সিনেমায় তাঁর লুক কেমন হবে, তারই ঝলক সামনে এল মঙ্গলবার৷ ২০০২ সালে ‘সুপার ৩০’-র অভিযান শুরু হয়েছিল৷ অঙ্কের শিক্ষক আনন্দ কুমারের উদ্দেশ্য ছিল আইআইটি-র মতো শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রবেশিকা পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার জন্য দুঃস্থ পরিবারের মেধাবি পড়ুয়াদের উপযুক্ত প্রশিক্ষণ দেওয়া। আর সেই প্রচেষ্টার প্রথম বছরেই আনন্দের ৩০ জন পড়ুয়ার মধ্যে ১৮ জন আইআইটি-র প্রবেশিকা পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছিলেন। তারপর আর থেমে থাকেনি ‘সুপার ৩০’-র যাত্রা। ২০১৭ সালে পরিস্থিতি এমন দাঁড়ায় যে ৩০ জনের মধ্যে ৩০ জনই আইআইটির প্রবেশিকা পরীক্ষায় পাশ করেন। আর এরপরই আনন্দকে নিয়ে সিনেমা তৈরির কথা ভাবেন পরিচালক বিকাশ বহেল৷ নিজেই লেখেন স্ক্রিপ্ট৷ আর আনন্দের ভূমিকায় ‘গুজারিশ’,‘কাবিল’-এর মতো সিনেমায় অভিনয় করা ঋত্বিকের জায়গা আর কে-ই বা নিতে পারতেন৷ এদিন ঋত্বিকের প্রকাশিত ছবিটি যেন সেটাই ফের প্রমাণ করল৷ ছবিটির প্রযোজনা সংস্থা ঋত্বিকের ফার্স্ট লুকের ছবিটি সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রথম পোস্ট করে৷ এরপর অভিনেতা নিজেও সেটি পোস্ট করেন৷ আর সোশ্যাল মিডিয়ায় মুহূর্তে সেটি ভাইরাল হয়ে যায়৷ প্রায় প্রত্যেকেই ঋত্বিককে প্রশংসায় ভরিয়ে দিয়েছেন৷ 

জনপ্রিয়

Back To Top