সৌগত চক্রবর্তী: • ‘‌লাভ আজ কাল পরশু’‌ ছবিতে আপনার অভিনীত চরিত্রটা ঠিক কীরকম?‌
•• আমার কথা বলছি না। শুধু ট্রেলারটার কথা বলছি। সেখানে দেখা যাচ্ছে একই মানুষ একবার অভিজিৎ বলছে, একবার অভিরূপ বলছে আবার একবার অভিষেক বলছে। সেটা পরিষ্কার করে বলতে গেলে আসল গল্পটা বেরিয়ে যাবে। তাই ট্রেলারে যে হিন্ট টুকু দেওয়া হয়েছে সেই অবধিই আমি রাখতে চাইছি। কিন্তু প্রত্যেকটা ক্ষেত্রেই অন্য বডি ল্যাঙ্গুয়েজ, অন্য ধরনের বাচনভঙ্গি, হাবভাব আলাদা কিনতু দেখা যাচ্ছে মানুষটা একই।
• এই তিনটি আলাদা আলাদা চরিত্র অথচ একটাই মানুষ। এটা দর্শকের কাছে জীবন্ত করতে গিয়ে কতটা পরিশ্রম করতে হয়েছে?‌
•• পরিশ্রম ঠিক নয়। আসলে একজন অভিনেতা হিসেবে এই চ্যালেঞ্জটা নিতে বেশ মজা লেগেছে। অভিনেতা হিসেবে আমরা তো সবসময়েই চ্যালেঞ্জ খুঁজি!‌
• এর আগে প্রতিমের পরিচালনায় ‘‌মাছের ঝোল’‌ করেছেন। এবার ‘‌লাভ আজ কাল পরশু’‌। প্রতিমের কাজের ক্ষেত্রে কোনও পরিবর্তন হয়েছে?
•• একদমই না। আগের মতই খুব শান্ত, সরল। কোনও চেঁচামেচি নেই, বিরক্তি নেই। আমার ধারণাই নেই কোনও মানুষ বিরক্ত হলেও এভাবে কথা বলে। এত সাকসেসফুল ছবি করেও মানুষটা এতটুকু বদলায়নি, এটা খুব ভাল লাগে।
• একটা সময়ে ছোটপর্দার ‘‌গানের ওপারে’ দিয়ে তোমার কেরিয়ার শুরু হয়েছিল। সেখান থেকে এলে বড়পর্দায়। তারপর আবার ছোটপর্দায় ‘‌জামাই রাজা’‌। এখন কি আর ছোটপর্দায় ফিরবেন?‌
•• না, এখন টেলিভিশনে একদম মন দিচ্ছি না। এই সিনেমা মিডিয়ামটা আমার একটু বেশি ভাল লাগছে। এই যে অল্প সময়ের একটা গল্প, তার কাজ করার ধরনটা আলাদা, অভিনয়ের ধারাও আলাদা। সব কিছু মিলিয়ে সিনেমায় কাজ করার মজাটাই আলাদা। এখন এই সিনেমাতেই মন দিতে চাইছি।
• সম্প্রতি ‘‌গুপ্তধনের সন্ধানে’‌, ‘‌দুর্গেশগড়েক গুপ্তধন’ বা ‘‌ব্যেমকেশ গোত্র’‌ এই সিনেমাগুলো আপনাকে যথেষ্ট প্রচার দিয়েছে। সে জন্যেই কি এমন সিদ্ধান্ত?‌
•• সত্যি কথা। এই তিনটে ছবি আমাকে চলচ্চিত্র অভিনেতা হিসেবে আমাকে দাঁড়তে অনেকটাই সাহায্য করেছে। বিশেষ করে ‘‌ব্যোমকেশ গোত্র’‌। এই ছবিতে সত্যকামের মতো একটা চরিত্রে কাজ করে যথেষ্ট প্রশংসা পেয়েছি। আমার বাবা (‌‌সব্যসাচী চক্রবর্তী)‌ অনেকটাই কম কথা বলেন। কিন্তু তিনিও সত্যকামের ভূমিকায় আমার অভিনয় দেখে আমাকে মেসেজ করেছিলেন, তোমার জন্য গর্ব অনুভব করি।
• বড় প্রযোজক ও ছোট প্রযোজক দুই ধরনের প্রযোজকের ছবিতেই আপনি কাজ করেছেন। পার্থক্যটা কী?‌
•• প্রথম কথা বড় প্রযোজকের সঙ্গে কাজ করার ক্ষেত্রে একটা নিরাপত্তা থাকে। যেমন ছবিটা ঠিক সময়ে মুক্তি পায়, তার বিপননটা ভাল হয় বা পাবলিসিটিটা ভাল হয়। অন্যদিকে ছোট প্রযোজকের ক্ষেত্রে সেই নিরাপত্তা থাকে না। অনেক সময়ে দেখেছি কোথাও ছবির রিলিজটা ঘেঁটে যায়। এটা কিন্তু খুব চিন্তার বিষয়। হয়তো দারুণ কাজ করলাম কিন্তু কেউ দেখতেই পেল না। মনে হয় ছবিটা করে কোনও লাভ হল না। হয়তো রোজগার হল, কিন্তু তৃপ্তি পেলাম না।
• দাদা গৌরবের সঙ্গে আপনার সম্পর্কটা ঠিক কেমন?‌ তোমার কাজের সমালোচনা করেন?‌ তোমার কাজের ব্যাপারে পরামর্শ দেন?‌
•• আমি আর দাদা একদম বেস্ট ফ্রেন্ড। আমরা দুজনেই দুজনের কাজের অ্যানালিসিস করি। ‘‌দ্বিতীয় পুরুষ’‌ দেখে আমি হয়ত ওকে কিছু বললাম। দাদাও হয়ত আমার কোনও ছবি দেখে কিছু বলল। পজেটিভ বা নেগেটিভ সব কিছুই আমরা শেয়ার করি।আমা
• বাবা কী বলেন?‌
•• বাবা তো কোনও দিনই বাড়াবাড়ি রকমের প্রশংসা করেন না। তবে আমার কাজের প্রশংসা করেন। আর খারাপ লাগলে এমনভাবে খারাপ লাগার কথাটা বলেন যে একদমই খারাপ লাগবে না।
• এখন থিয়েটার করছেন?‌
•• অনেকদিনই মন দিয়ে থিয়েটার করেছি। তারপরে অনেকদিন আর থিয়েটারে মন দিতে পারছি না। এখন আসলে সিনেমা নিয়েই ব্যস্ত।
• ওয়েব সিরিজ না সিনেমা?‌ কোনটা বেশি প্রিয় আপনার?‌
•• এই মূহূর্তে অবশ্যই সিনেমা।
• আপনার ছবি ‘‌অভিযাত্রিক’‌-‌এর খবর কী?‌
•• শুটিং শেষ হয়ে গেছে অনেকদিন। এখন ফেস্টিভ্যাল সার্কিটে ঘুরছে। এখানে মুক্তি পেতে পেতে গ্রীষ্মকাল।
• আর অঞ্জন দত্তর পরিচালনায় ‘‌সাহেবের কাটলেট’‌?‌
•• না, এটার কোনও খবর নেই। শুটিং অনেকদিন আগেই শেষ হয়ে গেছে।
• শুভ্রজিৎ মিত্রর ‘‌অভিযাত্রিক’ সিনেমায় আপনি অভিনয় করেছেন ‘‌অপু’‌র ভূমিকায়। স্বভাবতই সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের সঙ্গে তুলনা আসবে। এই চরিত্রে অভিনয় করতে গিয়ে‌ আপনার কী মনে হয়েছে?‌
•• আমার সৌভাগ্য যে পরিচালক শুভ্রজিৎ মিত্র বা এই ছবির প্রেজেন্টার মধুর ভান্ডারকর আমাকে এই সুযোগটা দিয়েছেন। আর সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় এই অপুর ভূমিকায় অভিনয় করেছেন, এটা আমার কাছে একটা বোঝা। কারণ, আমি হাজার চেষ্টা করলেও তাঁর অভিনীত ‘‌অপু’‌কে মাথা থেকে বের করে দিতে পারব না। আর নিজের মতো অভিনয় করলেও সবাই বলবে সুন্দর নকল করেছে। তবে আমি চেষ্টা করেছি স্ক্রিপ্টটা অনুসরণ করতে। পরিচালক নিজেও সত্যজিৎ রায় হওয়ার চেষ্টা করেননি তাই আমিও সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়কে নকল করার চেষ্টা করিনি। অভিনয়টা নিজের মতো করে করার চেষ্টা করেছি।

ছবি:‌ বিপ্লব মৈত্র‌
‌‌ ‌

জনপ্রিয়

Back To Top