আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ রেকর্ড হারে বাড়ল জিএসটি আদায়। দেশজুড়ে জিএসটি কার্যকর হওয়ার পর পণ্য ও পরিষেবা কর সংগ্রহ কখনও এত হয়নি, বলছে কেন্দ্র। অঙ্কের হিসেবে ১ লক্ষ ১৫,‌১৭৪ কোটি, গত বছরের ডিসেম্বরের তুলনায় ১২% বেশি। তার মধ্যে সিজিএসটি ২১,৩৬৫ কোটি, এসজিএসটি ২৭,৮০৪ কোটি টাকা। আইজিএসটি সংগ্রহ ৫৭,৪২৬ কোটি টাকা, যার মধ্যে পণ্য আমদানি থেকে কর সংগ্রহ ২৭,‌০৫০ কোটি টাকা। সেস আদায় দাঁড়িয়েছে ৮,‌৫৭৯ কোটি টাকা, তার মধ্যে পণ্য আমদানি থেকে সংগ্রহ হয়েছে ৯৭১ কোটি টাকা। আইজিএসটি–র অর্থ কেন্দ্র আর রাজ্যের জিএসটি তহবিলে ভাগাভাগির পর ডিসেম্বরে সিজিএসটি–তে মোট আয় ৪৪,‌৬৪১ কোটি এবং এসজিএসটি–তে আয় ৪৫,‌৪৮৫ কোটি টাকা। পরিসংখ্যান বলছে, গত বছরের তুলনায় পণ্য আমদানি থেকে কর সংগ্রহ বেড়েছে ২৭% এবং দেশের বাজারে পণ্য কেনাবেচা থেকে কর আদায় বেড়েছে ৮%, যা নিঃসন্দেহে বাজার চাঙ্গা হওয়ার ইঙ্গিত দিচ্ছে, দাবি করছেন বিশেষজ্ঞরা। 
মার্চে দেশজুড়ে লকডাউন ঘোষণা হওয়ার পর জিএসটি সংগ্রহ তলানিতে ঠেকেছিল। আনলক পর্বে গত সেপ্টেম্বর থেকে বাজারে পণ্যসামগ্রীর চাহিদা বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে তাল মিলিয়ে বাড়তে থাকে আদায়। বিশেষজ্ঞদের একাংশের দাবি, ডিসেম্বর বিয়ের মরশুম। গাড়ি, সোনা–গয়নার চাহিদা বাড়ে এই সময়ে। এছাড়াও বর্ষবরণের ছুটি কাটাতে অনেকেই ঘুরতে বেরিয়ে পড়েন, যার জেরে পর্যটন ক্ষেত্রেও চাহিদা আকাশছোঁয়া হয়। জানুয়ারি মাসেও যদি এই ধারাবাহিকতা বজায় থাকে, তাহলে বুঝতে হবে, সত্যিই ঘুরে দাঁড়াচ্ছে অর্থনীতি।   
 

জনপ্রিয়

Back To Top