আজকাল ওয়েবডেস্ক:  কোভিড–১৯–এর জন্য প্রায় দেশ জুড়ে যে লকডাউন চলছে তার প্রভাব পড়েছে আকাশ, সড়ক এবং রেল পরিষেবার ব্যবসায়িক দিকে। তবে সব থেকে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে উড়ান বাণিজ্য। সমীক্ষক সংস্থা ক্রাইসিলের সাম্প্রতিক সমীক্ষা অনুযায়ী ২০২০–২১ অর্থবর্ষে শুধু আকাশ বাণিজ্যেই লোকসান হতে চলেছে প্রায় ২৫,০০০ কোটি টাকা। তার মধ্যে শুধু বিমান কোম্পানিগুলিতেই এই বিপুল অঙ্কের লোকসানের ৭০ শতাংশ বা ১৭,০০০ কোটি টাকার ক্ষতি হবে। এছাড়া বিমানবন্দরগুলি প্রায় ৫৫০০ কোটি টাকা এবং সেখানে অবস্থিত বিভিন্ন বিপণিগুলির প্রায় ১৮০০ কোটি টাকা লোকসান হতে পারে। যার ফলে গত এক দশকে যে বছর পিছু ১১ শতাংশ লাভ করছিল এই শিল্প সেটা পুরোপুরি উল্টে যাবে। দেশের চারটে মেট্রো শহরে যদি লকডাউনের সময়সীমা আরও বাড়ে তাহলে লোকসানের বোঝা পাহাড়প্রমাণ হয়ে উঠবে। আগের লাভজনক পরিস্থিতি আনতে প্রায় ছয়টা অর্থবর্ষ লেগে যেতে পারে। ক্রাইসিলের ডিরেক্টর তথা ট্রান্সপোর্ট অ্যান্ড লজিস্টিক্সের প্র‌্যাকটিস লিডার জগন্নারায়ণ পদ্মনাভন বলছেন, এই লোকসানের অঙ্কটা সম্পূর্ণ প্রাথমিক অনুমান। তাঁর মতে, লোকসানের বোঝা কমাতে সম্ভবত ছোট ছোট বিমান কোম্পানিগুলি বড় কোম্পানির সঙ্গে মিশে যেতে পারে।
অন্যদিকে, ক্রাইসিলের সমীক্ষা অনুযায়ী, মার্চ থেকে জুনের মধ্যে সড়ক বাণিজ্যে টোল থেকে আদায় হওয়া রাজস্বে প্রায় ৩৭০০ কোটি টাকার লোকসান হতে পারে। শুধু জাতীয় সড়ক কর্তৃপক্ষ বা এনএইচআই–এরই এই সময়ের মধ্যে টোলে লোকসান হতে পারে প্রায় ২২০০ কোটি টাকা। এদিকে ৬০০০ কিলোমিটার সড়কে টোল পরিষেবা বসিয়ে ২০২৫ অর্থবর্ষের মধ্যে প্রায় ৮৫০০০ কোটি টাকা রাজস্ব আদায়ের পরিকল্পনা ছিল এনএইচআই–এর।
ছবি:‌ এএনআই                  ‌‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top