আজকাল ওয়েবডেস্ক:‌ দরদ উদলে উঠল ঋণখেলাপি পলাতক ব্যবসায়ী বিজয় মালিয়ার। জেট এয়ারওয়েজ দেনার দায়ে ডুবে যাওয়ায় তার প্রতিষ্ঠাতা নরেশ গোয়েলের জন্য তাঁর দরদ উদলে উঠল। তাই তিনি সমবেদনা জানিয়েছেন তাঁকে। অন্যদিকে কেন্দ্রীয় সরকারের বৈষম্যমূলক নীতির জন্যই জেটের এই হাল হয়েছে বলে তিনি দায়ী করেছেন। বুধবার সকালে টুইট করে তিনি এই মতপ্রকাশ করেছেন। 
বিজয় মালিয়া এদিন টুইটে লিখেছেন, ‘‌জেট একসময় কিংফিশারের প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী ছিল। তাই আমি দুঃখিত এটা দেখে যে একটা বেসরকারি বৃহৎ বিমান সংস্থা সরকারের বৈষম্যের জন্য লোকসানে চলে গেল। এয়ার ইন্ডিয়াকে বাঁচাতে ৩৫ হাজার কোটি টাকা খরচ করা হল। অথচ বেসরকারি এই বিমান সংস্থাকে সাহায্য করা হল না। এই বৈষম্যের কোনও অজুহাত হয় না।’‌ তিনি এখন বিপাকে পড়ে এভাবে মন্তব্য করছেন বলেও অনেকে মনে করছেন। তবে এইরকম টুইট প্রথম নয়। 
নিজের দিকে ঝোল টানতেও এদিন তিনি টুইট করে লিখেছেন, ‘‌আমি কিংফিশারের জন্য প্রচুর বিনিয়োগ করেছি। ফলে সেটা পুরষ্কারপ্রাপ্ত বিমান সংস্থায় পরিণত হয়। তবে এটা সত্যি কিংফিশারের জন্য রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের কাছ থেকে ঋণ নিতে হয়েছিল। আমি সেই ঋণের ১০০ শতাংশ ফেরত দিতে প্রস্তাব দিয়েছিলাম। কিন্তু বিনিময়ে আমাকে ফৌজদারি মামলায় অভিযুক্ত করা হয়েছে। তবে নরেশ গোয়েল এবং নীতা গোয়েলের জন্য আমার সমবেদনা রয়েছে। জেট এয়ারওয়েজ ভারতের একটা গর্ব হয়ে উঠেছিল। এই ঘটনা সত্যিই খুব দুঃখজনক।’‌ ‌‌

জনপ্রিয়

Back To Top