আজকাল ওয়েবডেস্ক: দেশের‌ অর্থনীতির অবস্থা খারাপ। প্রভাব পড়েছে বিভিন্ন শিল্পে। তবে এখনও পর্যন্ত মদ বিক্রি কমেনি দেশে। বরং উত্তরোত্তর বেড়ে চলেছে। সম্প্রতি একটি সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে আগামী তিন বছরে অর্থাৎ ২০২২ সালের মধ্যে দেশে মদ বিক্রির পরিমাণ তিনগুণ বেড়ে যাবে। ২০১৮ সালে যেখানে মদ বিক্রির পরিমাণ ছিল ৫.‌৯৪ বিলিয়ন লিটার, সেখানে তিন বছর পর পরিমাণ বেড়ে দাঁড়াবে ১৬.‌৮ বিলিয়ন লিটার। পহলে ইন্ডিয়া ফাউন্ডেশন নামে এক সংস্থার সমীক্ষায় উঠে এসেছে সেই তথ্য। কেন্দ্রীয় সরকার যেখানে বলছে ইজ অব ডুয়িং বিজনেস অর্থাৎ ব্যবসার পরিবেশ এদেশে উন্নত। সেখানে এই সমীক্ষায় বলা হয়েছে, মদ বিক্রি বা এই সংক্রান্ত ব্যবসার ক্ষেত্রে প্রধান বাধা সরকারের বিভিন্ন নিয়ম। অর্থাৎ লাল ফিতের ফাঁসেই আয় বাড়ছে না বিক্রেতাদের। সমীক্ষায় বলা হয়েছে, সবচেয়ে বেশি কর সরকার আদায় করে মদ শিল্পের থেকেই। মনে করা হচ্ছে, গত বছরের তুলনায় চলতি আর্থিক বর্ষে আরও বেশি কর আদায় করবে সরকার। তাও আবার ১৫ শতাংশ বেশি। তবুও অন্যান্য শিল্পের মতো এখানে সরকার কোনও সুযোগ সুবিধা দেয় না। শুধু তাই নয়, সমীক্ষায় আরও বলা হয়েছে, যেহেতু প্রত্যেকটি রাজ্যে করের পরিমাণ আলাদা, মদ বিক্রি করার জন্য নিয়ম আলাদা। তাই অনেকসময়ই ব্যবসায়ীদের সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়। যেমন– মহারাষ্ট্রে একটি মদ প্রস্তুতকারক সংস্থাকে মদ তৈরি করতে প্রতি বছর বিভিন্ন জায়গা থেকে মোট ১০,৯০০–রও বেশি লাইন্সেস নিতে হয়। তবে শুধু আজ নয়, বহুদিন ধরেই চলে আসছে এই নিয়ম।

জনপ্রিয়

Back To Top