আজকাল ওয়েবডেস্ক: ‌২০১৮ সালে হনুমান জির আসল পরিচয় কি, তা নিয়ে বেশ জলঘোলা হয়েছে। একদিকে যেমন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ হনুমানকে দলিত বলেছিলেন, তার পাশাপাশি হনুমানকে জৈন, মুসলিম, খেলোয়াড়, চীনা এবং জাট বলেও সম্বোধন করা হয়েছিল। তবে সম্প্রতি হনুমানকে নিয়ে আরও একটি বিতর্ক সামনে এসেছে।  
গুজরাটের একটি মন্দিরে হনুমানকে সান্তাক্লজের মতো পোশাক পরানো হয়েছে। সারাঙ্গপুরের এই মন্দিরে হনুমানকে ‘‌কষ্টভঞ্জন দেব’‌ রূপে পুজো করা হয়। রবিবার কিছু হিন্দু ভক্তরা এসে হনুমানের মূর্তিতে লাল–সাদা পোশাক পরিয়ে দেন। যার জন্য হনুমানকে সান্তাক্লজের মতো দেখতে লাগছিল। যদিও এ ধরনের পদক্ষেপকে অনেকেই সুনজরে দেখেননি। কিছু ভক্ত মন্দিরে এসে হনুমানের এই পোশাক দেখে আপত্তি জানান। মন্দির কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেন তাঁরা। যদিও মন্দির কর্তৃপক্ষ এই বিতর্ককে সামলে নিয়ে জানান যে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে থাকা হনুমান জির এক ভক্ত এই পোশাক পাঠিয়েছে। 
মন্দির কর্তৃপক্ষ বলে, ‘‌এই পোশাকগুলি উল দিয়ে তৈরি। যা ভগবানকে ঠাণ্ডা থেকে রক্ষা করবে।’‌ মন্দিরের প্রধান পুরোহিত স্বামী বিবেকসাগর মহারাজ জানান, সান্তাক্লজের পোশাক নয় এইগুলো। তিনি বলেন, ‘‌পোশাকগুলি ভেলভেট দিয়ে তৈরি বলেই আমরা হনুমান জিকে পরিয়েছি। কারোর ভাবাবেগে আঘাত করার জন্য এটা করা হয়নি।’‌ কিন্তু তা সত্ত্বেও ভক্তরা মন্দির কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে অভিযোগ তোলায় পরে হনুমানের পোশাক পরিবর্তন করে দেওয়া হয়।   

 

 

 


 

জনপ্রিয়

Back To Top